বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন ইন স্পেনের নির্বাচন কমিশন সচিব মো. দুলাল সাফার সঞ্চালনায় বর্ণাঢ্য অভিষেক ও বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন স্পেনে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মোহাম্মদ সারওয়ার মাহমুদ। বিশেষ অতিথি ছিলেন স্পেনের রাষ্ট্রীয় পদকপ্রাপ্ত বাংলাদেশি চিত্রশিল্পী মনিরুল ইসলাম, বাংলাদেশ দূতাবাসের দূতালয় প্রধান আবদুর রউফ মন্ডল, পলিটিক্যাল কাউন্সিলর দীন মোহাম্মদ ইমাদুল ইসলাম, প্রথম সচিব (শ্রম) মোহতাসিমুল ইসলাম।

বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন ইন স্পেনের ধর্ম সম্পাদক জহির উদ্দিনের কোরআন তেলাওয়াতের মাধ্যমে শুরু হওয়া অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্য দেন বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন ইন স্পেনের নির্বাচন কমিশনার মো. রমিজ উদ্দিন। বক্তব্য দেন বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন ইন স্পেনের সভাপতি আল মামুন, সিনিয়র সহসভাপতি শাহ আলম, সাধারণ সম্পাদক মুরাদ মজুমদার, কমিউনিটি নেতা নুর হোসেন পাটোয়ারী, মাহবুবুর রহমান ঝন্টু, ব্যবসায়ী মো. কালাম সেলিম, ভালিয়েন্তে বাংলার সভাপতি মো. ফজলে এলাহি, কমিউনিটি নেতা মাওলানা আসাদুজ্জামান রাজ্জাক, জাকির হোসেন, এ কে এম জহিরুল ইসলাম, স্পেন বাংলা প্রেসক্লাবের সভাপতি সাহাদুল সুহেদ, অ্যাসোসিয়েশন ইন স্পেনের নির্বাচন কমিশনার শিপন আহমদ। অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন আবদুল কাইয়ুম সেলিম, রাসেল দেওয়ান, একরামুজ্জামান কিরণ, সোহেল আহমদ সামছু, আক্তারুজ্জামান, আবুল কাশেম মুকুল প্রমুখ।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে স্পেনে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মোহাম্মদ সারওয়ার মাহমুদ নবগঠিত কমিঠিকে শুভেচ্ছা জানিয়ে বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন ইন স্পেনের বিভিন্ন সামাজিক ও মানবিক কর্মকাণ্ডের প্রশংসা করেন। রাষ্ট্রদূত এ সময় দেশের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করতে এবং দূতাবাসকে প্রবাসীদের কল্যাণে আরও বেশি সম্পৃক্ত শুধু নয়, সহযোগী করতে একযোগে কাজ করার আহ্বান জানান। রাষ্ট্রদূত আশ্বাস দেন যে বাংলাদেশ কমিউনিটির সামাজিক উন্নয়নে অ্যাসোসিয়েশনের সব কল্যাণমুখী কর্মকাণ্ডে দূতাবাস পাশে থাকবে।

২০২২-২৩ সালের জন্য বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশনের দুই বছর মেয়াদি ২১ সদস্যবিশিষ্ট নতুন কার্যকরী কমিটির সবাই বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হন। গত ২৮ ডিসেম্বর নির্বাচনের দিন ধার্য ছিল। কিন্তু নির্বাচনের জন্য মামুন-মুরাদ পরিষদের বিপরীতে কেউ মনোনয়নপত্র জমা না দেওয়ায় প্রধান নির্বাচন কমিশনার খোরশেদ আলম মজুমদার ওই প্যানেলকে নির্বাচিত ঘোষণা করেন।

মাদ্রিদের শীর্ষস্থানীয় নেতাদের উপস্থিতিতে দুই বছর মেয়াদি এই কমিটিতে সভাপতি পদে আল মামুন ও সাধারণ সম্পাদক মুরাদ মজুমদার ছাড়াও শপথ গ্রহণ করেন সংগঠনের জ্যেষ্ঠ সহসভাপতি মো. শাহ আলম, সহসভাপতি শামীম আহমদ, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আবদুল আওয়াল খান, সহসাধারণ সম্পাদক আবু জাফর রাসেল, সহসাধারণ সম্পাদক মো. দ্বীন ইসলাম, কোষাধ্যক্ষ ওয়াছিব আলী মুন্না শাওন, সহকোষাধ্যক্ষ নাজমুল করিম পাটোয়ারী পিয়াস, সাংগঠনিক সম্পাদক ওহিদুজ্জামান, প্রচার ও দপ্তর সম্পাদক আবুল কালাম সরকার, সহপ্রচার ও দপ্তর আবদুল মালিক এমদাদ, শিক্ষা, সংস্কৃতি ও ধর্ম সম্পাদক মো. জহির উদ্দিন, ক্রীড়া সম্পাদক মোহাম্মদ সুমন হাওলাদার, সহক্রীড়া সম্পাদক কামিল আহমদ সুবেল, মহিলা ও সমাজকল্যাণ সম্পাদিকা জোসনা বেগম, সহমহিলা ও সমাজকল্যাণ সম্পাদিকা রুমী খালেদা। কার্যকরী সদস্য আবুল হোসেন, আহমদ আসাদুর রহমান সাদ, নূর মোহাম্মদ সরকার। এ সময় নতুন কার্যকরী কমিটির নেতারা সংগঠনের নিজস্ব ভবন নির্মাণ, দল–মতের ঊর্ধ্বে সবার কাছে গ্রহণযোগ্য প্ল্যাটফর্ম তৈরি, নতুন ইমিগ্র্যান্টদের সার্বিক সহযোগিতা, সংগঠনকে প্রবাসীবান্ধব ও মডেল সংগঠন হিসেবে দাঁড় করানোসহ নানা প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন।

অনুষ্ঠানে নবনির্বাচিত সভাপতি আল মামুন বলেন, ‘সম্পূর্ণ গণতান্ত্রিকভাবে নির্বাচিত একটি কমিটি সংবিধানসম্মতভাবে সংগঠনের দায়িত্ব গ্রহণ করছে। আজকের দিনটি আমাদের জন্য নিঃসন্দেহে একটি গুরুত্বপূর্ণ দিন। আশা করি, সবার সক্রিয় সহযোগিতায় আমরা আমাদের প্রিয় এই সংগঠনকে আরও এগিয়ে নিয়ে যেতে সমর্থ হব।’

নবনির্বাচিত সাধারণ সম্পাদক মো. মুরাদ মজুমদার বলেন, ‘শুধু অভিষেক অনুষ্ঠান নয়, সংগঠনের সদস্যদের মধ্যে সৌহার্দ্য ও সম্প্রীতির বন্ধনকে আরও সুদৃঢ় করার লক্ষ্যে পরবর্তী সময়ে বিভিন্ন সামাজিক, সাংস্কৃতিক ও শিক্ষামূলক অনুষ্ঠান নিয়মিতভাবে আয়োজন করা হবে। আমরা সংগঠনের সব কার্যক্রম অত্যন্ত স্বচ্ছতার সঙ্গে পরিচালনা করতে চাই।’